Sufi Faruq (সুফি ফারুক)

আমার সাহির লুধিয়ানভি গান খেকো, নোট

সাহির লুধিয়ানভি তার মা কে নিয়ে লিখেছিলেন।

“তু মেরে সাথ র‍্যাহেগা মুন্নে
ম্যায় তুঝে র‍্যাহেম কে সায়ে মে পলনে না দুঙ্গি
জিন্দগি কি কাড়ি ধুপ মে জালনে দুঙ্গি
তাকি তাপ তাপ কে তু ফওলাদ বানে
মা কি আওলাদ বানে”

ফওলাদ = ইস্পাত

এই লাইনগুলো যখন প্রথম দেখেছিলাম, মনে হয়েছিল আমার মায়ের কথাই যেন বলেছেন। আমার বাবার হত্যাকাণ্ডের পরে মা আমার আর সব ভাইবোনকে এলাকার বাইরে পাঠিয়ে দিয়েছিলেন। আমি একাই থাকতাম মায়ের সাথে। আমাদের স্ট্রাগলের সেই সময়গুলো চোখের সামনে আসে, মায়ের কথাগুলো সৃতিতে ভাসে।

সাহির ভারতের ফিল্ম জগতের তারকা গীতিকার ছিলেন। আজকের গীতিকার হিসেবে যে গুরুত্ব বা সম্মান, তার অনেকখানি তার দর কষাকষির কারণেই হয়েছে। তিনিই প্রথম দাবী করেছিলেন গান হিট হবার পেছনে গীতিকারের বড় ভূমিকা আছে। এজন্য সুরকার বা কণ্ঠশিল্পীর চেয়ে ১ টাকা হলেও বেশি দিতে হবে। সম্মানীর পরিমাণ যাই হোক, ১ টাকা যেন বেশি হয়।

দারুণ সব প্রেমের গান লিখে গেছেন অথচ তিনি নাকি প্রেমের গান লিখতে সবচেয়ে অপছন্দ করতেন। তার প্রেম ছিল মূলত প্রকৃতিতে। পাশাপাশি মানুষ, রাজনীতি এসব ছিল তার আগ্রহের বিষয়। সঙ্গত কারণেই তার প্রেমের গান হলেও সেই ক্যানভাস অনেক বড় হতো। প্রকৃতির বিভিন্ন উপাদান দিয়ে তিনি প্রেমের সঙ্গীত বিনির্মাণ করতেন।

সাহিরের আমার আরও দুটি প্রিয় লাইন, ওয়ান ইলেভেনে যে লাইনদুটো বারবার মনে হতো :
“সিতাম কি দউর মে হাম আহল-এ-দিল হি কাম আয়ে
জুবান পে নাজ থা যিনকো উয়ো বেজুবান নিকলে।”

সাহির সবসময় অন্যরকম চিন্তার মানুষ ছিলেন। ভারত পাকিস্তানের পার্টিশন ঘোষণার সময় সাহির পাকিস্তান অংশেই ছিলেন। ঘোষণার পরে মুসলিমরা পাকিস্তান যাচ্ছিল, হিন্দুরা ভারত আসছিলেন। তিনি মুসলিম হয়েও পাকিস্তান ছেড়ে ভারত চলে আসেন।

 

সাহির লুধিয়ানভির লেখা আমার সব প্রিয় গান:

১. যো ওয়াদা কিয়া উয়ো নিভানা পাড়েগা (ফিল্ম: তাজমহল)

 

সিরিজের বিভিন্ন ধরনের আর্টিকেল সূচি:

গান খেকো সিরিজ- সূচি
শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের ব্যাকরণ বা শাস্ত্র সূচি
রাগ শাস্ত্র- সূচি
রাগ চোথা- সূচি
রাগের পরিবার ভিত্তিক বা অঙ্গ ভিত্তিক বিভাগ
ঠাট ভিত্তিক রাগের বিভাগ
সময় ভিত্তিক রাগের বিভাগ
ঋতু ভিত্তিক গান (ঋতুগান) এর সূচি
রস ভিত্তিক রাগের বিভাগ
উত্তর ভারতীয় শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের রীতি/ধারা
সঙ্গীতের ঘরানা- সূচি
সুরচিকিৎসা- সূচি
শিল্পী- সূচি
প্রিয় গানের বানী/কালাম/বান্দিশ- সূচি
গানের টুকরো গল্প বিভাগ

Declaimer:

শিল্পীদের নাম উল্লেখের ক্ষেত্রে আগে জ্যৈষ্ঠ-কনিষ্ঠ বা অন্য কোন ধরনের ক্রম অনুসরণ করা হয়নি। শিল্পীদের সেরা রেকর্ডটি নয়, বরং ইউটিউবে যেটি খুঁজে পাওয়া গেছে সেই ট্রাকটি যুক্ত করা হল। লেখায় উল্লেখিত বিভিন্ন তথ্য উপাত্ত যেসব সোর্স থেকে সংগৃহীত সেগুলোর রেফারেন্স ব্লগের বিভিন্ন যায়গায় দেয়া আছে। শোনার/পড়ার সোর্সের কারণে তথ্যের কিছু ভিন্নতা থাকতে পারে। আর টাইপ করার ভুল হয়ত কিছু আছে। পাঠক এসব বিষয়ে উল্লেখে করে সাহায্য করলে কৃতজ্ঞ থাকবো।

*** এই আর্টিকেলটির উন্নয়ন কাজ চলমান ……। আবারো আসার আমন্ত্রণ রইলো।